হ্যাকার থেকে নিজেকে রক্ষা করুন

এখানে আমরা হ্যাকিং থেকে আপনার পিসি রক্ষার কিছু বেসিক বিষয় নিয়ে আলোচনা করব। এগুলো ফলো করলে একজন হ্যাকারের জন্য খুবই কষ্ট হবে আপনার পিসি হ্যাকিং করতে। বর্তমানে ব্যাংকিং, বিজনেস, শিক্ষা সবই অনলাইন, তাই হ্যাকার থেকে সাবধান হওয়াটার খুব জরুরী।  হ্যাকার থেকে নিজেকে রক্ষা করতে নিচের স্টেপগুলো ফলো করুন-

কখনো আইপি ডিসক্লোজ করবেন না-

কারো কাছে আপনার আইপি ডিসক্লোজ করবেন না, কারণ আইপি হলো আপনার কম্পিউটারের ঠিকানা। আপনার আইপি কোন হ্যাকার একবার পেয়ে গেলে সে আপনার কম্পিউটারে যেকোন সময় ঢুকতে পারবে। আর ঢুকতে পারলেই আপনার জরুরী তথ্য সহ পাসওয়ার্ড সবই চুরি করে নিতে পারবে।

কখনো অপরিচিত সফটওয়্যার বা এট্যাচমেন্ট ডাউলোড করবেন না-

অনেক কম্পিউটার ব্যবহারকারী বিভিন্ন দামী সফটওয়্যার না কিনে ব্যবহার কবরার জন্য ইন্টারনেটে কী-গেনস বা ক্রাকস ফাইল খোজে । কিন্তু মনে রাখতে হবে, হ্যাকাররা এই কী-গেনস বা ক্রাকস ফাইলের মধ্যে কীলগার বা ভাইরাস যুক্ত করে রাখে। আপনি যখন এই কী-গেনস বা ক্রাকস এ ডাবল ক্লিক করেন বা ওপেন করেন, সাথে সাথেই এই কীলগার বা ভাইরাস আপনার তথ্য, ইমেইল বিষয়ক তথ্য, পাসওয়ার্ড, এমনকি আপনি কখন কি টাইপ করছেন সেটাও হ্যাকারদের কাছে আপনার পারমিশন না নিয়েই পাঠাতে থাকে। আপনার ইমেইলে অপরিচিত কোন ঠিকান হতে আসা কোন মেইল পরবেন না বা মেইলে পাঠানো কোন লিংকে ক্লিক করবেন না, এমন কি অপরিচিত কোন এ্যাটাচ ফাইলও খুলবেন না।

ব্যবহার করুন ভালো এন্টিভাইরাস ও ফায়ার ওয়াল প্রোগ্রাম-

হ্যাকারদের নিকট হতে নিজেকে রক্ষার জন্য কখনো শুধুমাত্র উইন্ডোজের  ফায়ার ওয়ালের উপর নির্ভর করবেন না। সবসময় একটি ভালোমানের এন্টিভাইরাস ও ফায়ার ওয়াল প্রোগ্রাম  ব্যবহার করুন এবং নিয়মিত আপডেট রাখুন। এটা একটু ব্যয়বহুল হলেও আপনার নিরাপত্তার জন্য খুবই প্রয়োজন।

জটিল পাসওয়ার্ড ব্যবহার করুন-

আপনার একাউন্টের নিরাপত্তার জন্য সবসময় জটিল পাসওয়ার্ড বা 3D পাসওয়ার্ড ব্যবহার করুন। 3D পাসওয়ার্ড অর্থাৎ আপনার পাসওয়ার্ডে ক্যাপিটাল লেটার, স্মল লেটার, সংখ্যা, প্রতিক যেমন- ( _ ), @ ব্যবহার করুন। আপনার পাসওয়ার্ডে কমপক্ষে ৮ ক্যারাক্টার বিশিষ্ট করুন। আর একটি পাসওয়ার্ড কখনো দীর্ঘ সময় ব্যভহার করবেন না। মাঝে মাঝে পরিবর্তন করুন।

ব্যবহার শেষ হলে সবসময় আপনার একাউন্ট হতে লগ আউট বা সাইন আউট করুন-

ব্রাউজার ক্লোজ করার পূর্বে সবসময় আপনার একাউন্ট হতে লগ আউট বা সাইন আউট করুন। কেননা যখন আপনি আপনার একাউন্টে লগইন করবেন, তখনই সার্ভারে কুকিজ জমা হবে, আর সাইন আউট করলে এই কুকিজ অটোমেটিক্যালি ডিলেট হয়ে যাবে । আর যদি সাইন আউট না করেন, তাহলে কুকিজ অটোমেটিক্যালি ডিলেট হবে না এবং হ্যাকাররা খুব সহজেই এই কুকিজের এক্সেস পাবে এবং যেকোন সময় যেকোন পিসি হতে আপনার একাউন্টে লগইন করতে পারবে।

আপনার ডেটার ব্যাক আপ রাখুন-

আপনার সাইট হ্যাক হলে হ্যকাররা আপনার সাইটের ডেটা নষ্ট করে ফেলতে পারে। তাই সবসময় আপনার সাইটের সকল ডেটার ব্যাক আপ রাখুন।

পোষ্টটি ভালো লাগলে আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন।

You may also like...